দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকে’টর ৭ জনের করো’না!

করো’নাভাই’রাস মহামা’রির প্রকোপ ধীরে ধীরে ক্রিকেটার এবং ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের ওপরও পড়তে শুরু করেছে। পা’কিস্তান জাতীয় দলের তিন ক্রিকেটার করো’নায় আ’ক্রান্ত হয়েছেন। এবার জানা গেল, দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকে’টেও ৭ জন করো’না পজিটিভ।

ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা (সিএসএ) কাল জানিয়েছে, তাদের ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট ৭ জন করো’না পজিটিভ। সবাই যখন দ্রুত খেলা ফেরানোর কথা ভাবছে এ খবর তাদের সিদ্ধান্তে বড় প্রশ্ন তৈরি করল। প্রোটিয়া ক্রিকেটও খেলা দ্রুত মাঠে ফেরানোর কথা ভাবছে। সিএসএ ভা’রপ্রাপ্ত প্রধান নির্বাহী জ্যাক ফল জানান, কমপক্ষে ১০০ জনকে করো’না পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে খেলোয়াড় ও সাপোর্ট স্টাফরাও আছেন।

ফলের মতে ‘১০০ জনের মধ্যে আ’ক্রান্তসংখ্যা ৭ জন আসলে অনেক কম।’ সিএসএ চিকিৎসা ও নৈতিকতা নীতি মেনে আ’ক্রান্তদের নাম ঠিকানা তিনি প্রকাশ করেননি। গত মা’র্চে লকডাউনে চলে যায় প্রোটিয়া ক্রিকেট। এরপর খেলা ফেরাতে তোড়জো’র শুরু হলেও এ ঘটনা নিশ্চিতভাবেই পিছিয়ে দিল প্রোটিয়া ক্রিকেট’কে।

তিন দলের একটি ম্যাচ খেলাতে চেয়েছিল সিএসএ। কিন্তু সরকারের সায় না থাকায় তা হচ্ছে না। ফল জানিয়েছেন, এ টুর্নামেন্টের নতুন তারিখ ধার্য হয়নি। পৃথিবীতে ৯০ লাখের বেশির মানুষ এখন করো’নায় আ’ক্রান্ত। বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, পা’কিস্তানের সাবেক অলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদিও করো’নায় আ’ক্রান্ত।

সুশান্তকে নিয়ে সিনেমা নির্মাণ হবে ঢাকায়!

কয়েকদিন আগে মুম্বাইয়ের বান্দ্রার কা’টার রোডের অ্যাপার্টমেন্ট থেকে উ’দ্ধার হয় বলিউড অ’ভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ। আত্মহ’ত্যা করেছেন অ’ভিনেতা, প্রাথমিক ত’দন্তে জানিয়েছে পু’লিশ। তার মৃ’ত্যুর বিষয়টি নিয়ে এখনো আলোচনা থামছে না।
এবার সুশান্ত সিং রাজপুতকে নিয়ে একটি ডকু ফিল্ম তৈরি করছেন বাংলাদেশি পরিচালক জীবন শাহাদাৎ। এই ডকু ফিল্মের দৈর্ঘ্য হবে ২০ মিনিট। নাম রাখা হয়েছে ‘হ’ত্যা শেষে আত্মহ’ত্যা’।

এ বিষয়ে পরিচালক বলেন, ‌‌‌ভ’য়েজওভা’র, বিভিন্ন ট’ক শো, উপস্থাপনা আর ফুটেজের মিশ্রণে এই ডকু ফিল্ম তৈরি হবে। পুরোপুরি অন্যরকম স্টাইলে এটা নির্মাণ হবে। উপস্থাপক হিসেবে এই ডকু ফিল্মের সূত্রধর থাকবেন দেবাশীষ বিশ্বা’স।

পরচিালক জীবন শাহাদাৎ আরো বলেন, সুশান্তের সঙ্গে যা ঘটেছে সেটা খুবই দুঃখজনক। এই ঘটনা বর্তমানে আমাদের সমাজের একটি চলমান বিষয়। সেই চিন্তা থেকে পুরো বিষয়গুলো দর্শকদের কাছে তুলে ধ’রার চেষ্টা থাকবে।

২০০৮ সালে বালাজি টেলিফিল্মসের কিস দেশ মে হ্যায় মেরা দিলের সঙ্গে অ’ভিনয় ক্যারিয়ার শুরু করেন সুশান্ত সিং রাজপুত। এরপর প্রধান চরিত্রে কাজ করেন একতা কাপুরের পবিত্র রিসতা ধারাবাহিকে। ২০১৩ সালে কাই পো ছে ছবির মাধ্যমে বড় পর্দায় অ’ভিষেক হয় সুশান্ত সিং রাজপুতের। এরপর বেশ কিছু ছবিতে অ’ভিনয় করে পেয়েছেন জনপ্রিয়তা।

Leave a Reply

Your email address will not be published.